Skip to main content
ARBNDEENIDTRUR

সূরা আন নিসা শ্লোক 116

إِنَّ
নিশ্চয়ই
ٱللَّهَ
আল্লাহ
لَا
না
يَغْفِرُ
মাফ করেন
أَن
(যে)
يُشْرَكَ
শিরক করাকে
بِهِۦ
তার সাথে
وَيَغْفِرُ
কিন্তু মাফ করবেন
مَا
যা (আছে)
دُونَ
ব্যতীত
ذَٰلِكَ
এটা
لِمَن
যাকে
يَشَآءُۚ
তিনি ইচ্ছে করবেন
وَمَن
ও যে
يُشْرِكْ
শিরক করে
بِٱللَّهِ
আল্লাহর সাথে
فَقَدْ
নিশ্চয় অতঃপর
ضَلَّ
সে পথভ্রষ্ট হয়েছে
ضَلَٰلًۢا
পথভ্রষ্টতায়
بَعِيدًا
বহুদূরে

তাফসীর তাইসীরুল কুরআন:

নিশ্চয়ই আল্লাহ তাঁর সঙ্গে শরীক করাকে ক্ষমা করেন না, এছাড়া অন্য সব যাকে ইচ্ছে মাফ করেন এবং যে ব্যক্তি আল্লাহর সঙ্গে শরীক করে, সে চরমভাবে গোমরাহীতে পতিত হল।

আহসানুল বায়ান

নিশ্চয় আল্লাহ তাঁর সাথে অংশী (শিরক) করার অপরাধ ক্ষমা করেন না। এ ছাড়া অন্যান্য অপরাধ যার জন্য ইচ্ছা ক্ষমা করে দেন। আর যে কেউ আল্লাহর সাথে অংশী স্থাপন (শিরক) করে, সে ভীষণভাবে পথভ্রষ্ট হয়।

আবু বকর মুহাম্মাদ যাকারিয়া

নিশ্চয় আল্লাহ তাঁর সাথে শির্ক করাকে ক্ষমা করেন না; আর তার থেকে ছোট যাবতীয় গোনাহ যাকে ইচ্ছা ক্ষমা করে দেবেন, আর যে কেউ আল্লাহর সাথে শির্ক করে সে ভীষণভাবে পথ ভ্রষ্ট হয়।

আঠারতম রুকূ‘

আল-বায়ান ফাউন্ডেশন

নিশ্চয় আল্লাহ ক্ষমা করেন না তাঁর সাথে শরীক করাকে এবং এ ছাড়া যাকে চান ক্ষমা করেন। আর যে আল্লাহর সাথে শরীক করে সে তো ঘোর পথভ্রষ্টতায় পথভ্রষ্ট হল।

মুহিউদ্দীন খান

নিশ্চয় আল্লাহ তাকে ক্ষমা করেন না, যে তাঁর সাথে কাউকে শরীক করে। এছাড়া যাকে ইচ্ছা, ক্ষমা করেন। যে আল্লাহর সাথে শরীক করে সে সুদূর ভ্রান্তিতে পতিত হয়।

জহুরুল হক

তারা তো আহ্বান করে তাঁর পরিবর্তে শুধু নারী- মূর্তিদের, আর তারা তো আহ্বান করে শুধু বিদ্রোহী শয়তানকে, --